ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা

ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা

স্থপতি ও অধ্যাপক আবু এইচ ইমামউদ্দিন

স্থপতি ও অধ্যাপক আবু এইচ ইমামউদ্দিন স্যারের লেখা “ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা” বইটি এমন একটি সময়ে প্রকাশিত হয়েছে যখন বাংলা ভাষায় স্থাপত্যের রীতি-নীতি এবং বিভিন্ন ধারা অথবা Design Theory and Architectural Style সম্পর্কিত  বাংলা ভাষায় রচিত বইয়ের দূর্ভিক্ষ চলছিল। উপরন্তু কোন স্থপতি / স্থাপত্য গবেষক কর্তৃক রচিত এমন বিষয়ের বইয়ের কোন হদিস ছিল না। নন্দনতত্ত্ব এবং চারুকলা বিষয়ক বেশ কিছু বই প্রকাশিত হয়েছে এবং সেইসব বইয়ে ডিজাইন রীতি অথবা স্থাপত্য রীতিনীতি সম্পর্কে অল্প-বিস্তর যা আলোচনা হয়েছিল তা-ই ছিল স্থাপত্যের শিক্ষার্থীদের কাছে বাংলা ভাষায় রচিত বইয়ের উৎস বা সম্বল। যার বেশির ভাগই স্থাপত্য শিক্ষা সহায়ক হিসেবে কার্যকর ছিলনা। এমন পরিস্থিতিতে বইটির প্রথম সংস্করন প্রকাশিত হয়েছিল ১৯৯৭ সনের জুলাই মাসে।

ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা
“ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা” বইয়ের “ডিজাইনের সূত্র” অধ্যায়ের অংশবিশেষ

ডিজাইন রীতি ও স্থাপত্য ধারা

তাই স্থাপত্যকলা সংক্রান্ত এমন একটি বই যা কি না সেই সময়ে ছিল ধূধূ মরুভূমিতে এক পশলা বৃষ্টি। লেখক এখানে ডিজাইন রীতি সম্পর্কে সাবলীল বাংলায় বর্ণনা করেছেন। ডিজাইনের বিকাশ, উৎস, উপকরন, সূত্র, ডিজাইনের পদ্ধতি এবং সর্বপোরি ডিজাইনের উপলব্ধি সম্পর্কে আলোচনা করে লেখক ডিজাইনের রীতি সমূহকে পাঠকের কাছে বোধগম্য করে উপস্থাপন করেছেন।

বইটিতে আবু এইচ ইমামউদ্দিন স্যার স্থাপত্য ধারা  সম্পর্কে ব্যাখ্যা দিয়েছেন বিস্তারিত। স্থাপত্যের রূপ, জ্যামিতি, উপাদান, শৃঙ্গখলা, স্থাপত্যের অনুপাত ও স্কেল নিয়ে লিখেছেন সূচারু বিশ্লেষণ। লেখক এ বইটিতে স্থাপত্যে আলো ও রঙের অবস্থান এবং একই সাথে  স্থাপত্যে প্রভাব ও প্রকাশের ভঙ্গিমা নিয়ে বিশ্লেষণ করেছেন স্থপতি, স্থাপত্যের শিক্ষার্থী এবং স্থাপত্যে আগ্রহীদের সামনে।

মোটের ওপর লেখক এখানে বাংলা ভাষায় স্থাপত্যের ডিজাইন রীতি ও ধারা সম্পর্কিত এক বর্ণাঢ্য উপস্থাপনার ব্যঞ্জনা গড়েছেন তার এই লেখনীর মাধ্যমে। এত বছর পরেও এই বই এবং এর বিষয়বস্তুর প্রয়োজনীয়তারকুতি হয়নি এতটুকু

—- আর্কবাংলা ডেস্ক

Leave a Reply

Your email address will not be published.